ক্যান্সার প্রতিরোধ করে যেসব খাবার

ক্যান্সার প্রতিরোধ করে যেসব খাবার ।

স্বাস্থ্য

ক্যান্সার প্রতিরোধ করে যেসব খাবার সেগুলো সম্পর্কে আমরা অনেকেই জানি না। আর ক্যান্সার এমন একটা মরণব্যাধি যে পৃথিবীতে এমন কোন মানুষ নেই সে ক্যান্সারের নাম শুনলে ভয় পায় না । অবশ্য ভয় পাওয়ার কারণ রয়েছে , ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগীর মধ্যেও বেশিরভাগ রোগী মারা যান । অনেকে আবার চিকিৎসাধীন অবস্থায়ও মারা যান । আবার এমনও অনেক রুগি রয়েছে যারা ক্যান্সারের ব্যয়বহুল চিকিৎসা করাতেই পারেনা । চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা বলছে কিছু স্বাস্থ্যবিধি মেনে চললে ক্যান্সার থেকে মুক্তি পাওয়া যায় ।

গবেষণায় দেখা গেছে বাংলাদেশের প্রতিবছর প্রায় দুই থেকে তিন লাখ রোগী ক্যান্সারে আক্রান্ত হয় । বাংলাদেশ ক্যান্সার রোগী রয়েছে প্রায় ১০ লাখের মত । চিকিৎসা বিজ্ঞানে বলছেন প্রতি বছর বিশ্বে প্রায় ১০ মিলিয়ন ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগী সনাক্ত করা হয় । এই ১০ মিলিয়ন ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগীর মধ্যেও প্রায় ৬ মিলিয়ন ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগী মৃত্যুবরণ করেন । বাংলাদেশের এক গবেষণায় দেখা গেছে আমাদের প্রতি ১ লাখ ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীর মধ্যেও প্রায় ২৬০ জন আক্রান্ত রোগী মারা যাচ্ছে । যদি এখনো ঠিকমতো এর ব্যবস্থা না নেওয়া হয় তাহলে ২০৫০ সালের মধ্যেও প্রতি এক লাখ ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগীর মধ্য প্রায় এক হাজার ১৫০ জন আক্রান্ত রোগী মারা যেতে পারে ।

ক্যান্সার বা অন্যান্য রোগ থেকে মুক্তি পাওয়ার অন্যতম একটি পদ্ধতি হচ্ছে স্বাস্থ্যসম্মত খাবার গ্রহণ করা । আজকে আমরা এই পোষ্ট এর মাধ্যমে জানতে পারবো ক্যান্সার প্রতিরোধে আমরা কি কি খাবার খেতে পারি । তাই এই গুরুত্বপূর্ণ পোস্ট টি শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত পড়ুন এবং আপনার বন্ধুবান্ধব এবং পরিবারের সদস্যদের সচেতন করতে তাদের সাথে শেয়ার করুন ।

আমাদের মধ্যেও অনেকেই বুঝতে পারে না যে তার শরীরে ক্যান্সার আক্রমণ করেছে ফলে সে সময়মতো চিকিৎসা না নেওয়ার কারণে মৃত্যুবরণ করেন ।

তাই প্রথমে আমরা জানব ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগীর কিছু প্রাথমিক লক্ষণ ।

ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগীর প্রাথমিক লক্ষণক্যান্সারে আক্রান্ত রোগী প্রাথমিকভাবে অল্প অল্প জ্বর আসতে পারে এবং রাতে ঘেমে যেতে পারে বা ঠান্ডা লাগতে পারে । এছাড়া ক্ষুধা কমে যাওয়া , শরীরে চাক চাক দাগ দেখা দেওয়া , দীর্ঘস্থায়ী কাশি হওয়া , গলা ভেঙে যাওয়া , মলত্যাগের অভ্যাস পরিবর্তন হয়ে যাওয়া , মলের সাথে রক্ত আসা , অল্পতেই ক্লান্ত বোধ করা ওজন কমে যাওয়া , দীর্ঘস্থায়ী মাথাব্যথা দীর্ঘস্থায়ী কাশি হওয়া সহ আরো অনেক লক্ষণ দেখা যেতে পারে ।

এগুলো লক্ষণ দেখা দেওয়ার সাথে সাথে অবহেলা না করে বড় ডাক্তারের শরণাপন্ন হওয়া উচিত । আবার এইগুলো লক্ষণ দেখা দিলেই আপনি ভেবে বসবেন না যে আপনার ক্যান্সার হয়েছে অন্য কোন সমস্যার কারণে ও এগুলো লক্ষণ দেখা যেতে পারে তাই সবচেয়ে ভালো হবে ডাক্তারের পরামর্শ নেওয়া ।

ক্যান্সার প্রতিরোধ করে যেসব খাবার তা নিম্নে দেওয়া হলো:

১ । মাছ : বিভিন্ন পরীক্ষার নিরীক্ষায় দেখা গেছে যে মাছ এ অধিক পরিমাণে ফ্যাটি এসিড ওমেগা-৩ এন্ট্রিটিউমার ও এন্টিক্যান্সার বৈশিষ্ট্য সম্পন্ন । তাই প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় অন্যান্য খাবারের সাথে তৈলাক্ত মাছ রাখা উচিত ।

২ । বাদাম : ভিটামিন ই এর জন্য সবথেকে বাদাম ভালো পরিমাণ কাজ করে । যেহেতু চিনা বাদামে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন ই পাওয়া যায় তাই বাদাম কোলন যকৃত সহ অন্যান্য ক্যান্সারের ঝুঁকি কমাতে সাহায্য করে । তাই সকালে এবং বিকেলে অন্যান্য খাবারের তালিকা সাথে বাদাম রাখুন ।

৩ । স্বাস্থ্যকর তেল : বর্তমানে বাজারে ভেজাল তেলের চাহিদা বা যোগান খাঁটি তেলের থেকে অনেক অংশে বেড়ে গেছে । তাই আমাদের সতর্কতার সাথে তেল সংগ্রহ করতে হবে । অন্যান্য তেল থেকে নারকেল তেল তিলের তেল এবং পুষ্টি এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা রয়েছে । তাই আমাদের এইসব তেল ব্যবহার করা উচিত ।

৪ । গ্রিন টি : আমরা অনেকেই প্রতিদিন সকালে বা বিকেলে চা পান করে থাকি । কিন্তু আপনি কি জানেন অন্যান্য চা থেকে গ্রিন টি তে রয়েছে ক্যাটেচিন পলিফেনুরলি গ্যালোক্যাটেচিন যা ক্যান্সারের ঝুঁকি এবং ক্যান্সার সংক্রমণ থেকে আমাদের শরীরকে রক্ষা করে । তাই প্রতিদিন অন্যান্য চা পান করার থেকে সবুজ চা পান করা উচিত । কারন এটিও ক্যান্সার থেকে মুক্তি পাবার একটি অন্যতম উপায়।

৫ । মাশরুম : মাশরুম আমাদের দেশে খুব একটা প্রচলিত না হলেও অন্যান্য দেশে খুব জনপ্রিয় একটা খাবার মাশরুমে প্রচুর পরিমাণে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর বৈশিষ্ট্য রয়েছে । মাশরুম এ প্রচুর পরিমাণে পুষ্টিগুণ রয়েছে যা ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়াই করতে পারে ।

৬ । শাকসবজি : আমরা অনেকে ভাজাপোড়া জাতীয় খাবার বা ফাস্টফুড খেতে পছন্দ করি যা আমাদের শরীরের চর্বি বাড়িয়ে দেয় এবং ওজন বৃদ্ধি পায় । শরীরে অতিরিক্ত ওজন বৃদ্ধি পাওয়ার ফলে বিভিন্ন রোগ জীবাণু আমাদের শরীরে আক্রমণ করে । তাই আমাদের অন্যান্য খাবার থেকে বিরত থেকে শাকসবজি ফলমূল বেশি পরিমাণে আহার করা উচিত ।

এগুলো খাবার ছাড়াও মিষ্টি আলু , বেরি জাতীয় ফল , হলুদ , দেশি শাকসবজি , অর্গানিক মাংস , দুধ বা দুগ্ধজাতীয় খাবার আমাদের শরীরের বিভিন্ন রোগ জীবাণু আক্রমণ থেকে রক্ষা করে । তাই ক্যান্সার সহ অন্যান্য রোগ থেকে মুক্তি পেতে হলে আমাদেরকে প্রতিদিন নিয়মিত সুস্বাস্থ্যকর খাবার এবং নিয়মিত ব্যায়াম করতে হবে ।

Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *